ডিবিতে কী বলেছেন বাবুল?

ঢাকা, বুধবার, ২৪ এপ্রিল ২০১৯ | ১১ বৈশাখ ১৪২৬

ডিবিতে কী বলেছেন বাবুল?

পরিবর্তন প্রতিবেদক ৪:৫৪ অপরাহ্ণ, জুন ২৫, ২০১৬

ডিবিতে কী বলেছেন বাবুল?

ডিবিতে জিজ্ঞাসাবাদে স্ত্রী মিতু হত্যা সম্পর্কে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিয়েছেন পুলিশ সুপার বাবুল আক্তার। শুক্রবার রাত ২ টা থেকে শনিবার বিকেল ৪টা পর্যন্ত বিভিন্ন সময় তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। কী তথ্য দিয়েছেন তা নিয়ে চলছে নানা গুঞ্জন। তবে বিকেল সাড়ে ৪টায় রাজধানীর খিলগাঁওয়ে তার শ্বশুরবাড়িতে তাকে দিয়ে যাওয়া হয়েছে।


নাম প্রকাশ না করার শর্তে পুলিশের উর্ধ্বতন একজন কর্মকর্তা জানিয়েছেন, শুক্রবার রাতে খিলগাঁও থেকে সরাসরি বাবুল আক্তারকে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ কার্যালয়ে নিয়ে আসা হয়। সেখানেই রাতে রাখা হয় তাকে। এরপর সকালে পুলিশ হেডকোয়াটারে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে প্রায় ১ ঘণ্টা প্রথমে আইজিপি, পরে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সাথে একান্তে কথা বলেন বাবুল।

এই কর্মকর্তা আরও বলেন, কী বিষয়ে তাদের কথা হয়েছে সে বিষয়ে এখনও কিছু জানা যায়নি। কথা শেষে বাবুলকে নিয়ে যাওয়া হয় গোয়েন্দা কার্যালয়ে। এ সময় তাকে কিছুটা বিমর্ষ দেখা যাচ্ছিল বলে জানা গেছে।

জানা গেছে, গোয়েন্দা কার্যালয়েও বাবুল আক্তারকে নানা সময়ে বেশ কয়েকবার বিভিন্ন বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে। এ সময় মিতু হত্যাকাণ্ড সম্পর্কে বেশকিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পাওয়া গেছে। তবে এ বিষয়ে পুলিশের পক্ষ থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে এখনও কিছু জানানো হয়নি।

এ বিষয়ে বাবুল আক্তারের শ্বশুর মোশাররফ হোসেন জানান, রাত ১টার দিকে খিলগাঁও থানার ওসি মাইনুল হোসেন ও ডিএমপির মতিঝিল জোনের উপ-কমিশনার আনোয়ার হোসেন ওই বাসায় গিয়ে 'আইজিপি স্যার ডেকেছেন, কথা বলবেন' বলে বাবুল আক্তারকে নিয়ে যান। এরপর বাবুল আক্তারের সঙ্গে আর কোনো ধরনের যোগাযোগ করা যাচ্ছে না বলে অভিযোগ করেছেন তার শ্বশুর।

প্রসঙ্গত, গত ৫ জুন সকালে চট্টগ্রাম নগরীর পাঁচলাইশ থানার জিইসির মোড়ে ছেলেকে স্কুল বাসে তুলে দিতে গিয়ে দুর্বৃত্তদের ছুরিকাঘাত ও গুলিতে নিহত হন পুলিশ সুপার বাবুল আক্তারের স্ত্রী মাহমুদা খানম মিতু।

এসডি/এইচএসএম